ডাকবাংলা বাজারের ৮ ব্যবসায়ীকে জরিমানা

24

প্রতিবেদক, ডাকবাংলা:
সম্প্রতি সময়ে করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতিতে শর্ত সাপেক্ষে দোকান-পাট খুলে দেয়ার ঘোষণার পর থেকেই ঝিনাইদহ সদর উপজেলার ডাকবাংলা-বাজার ও সড়কে ছেলেদের তুলনায় মেয়েদের উপছে পড়া ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। বাজারে মুদি বা অন্য দোকানগুলোতে ভিড় না থাকলেও বিভিন্ন কসমেটিকস, গার্মেন্টস ও জুতার দোকান গুলোতে ছেলেদের তুলনায় মেয়েদের প্রচণ্ড ভীড় বেশি চোখে পরে এবং সামাজিক দূরত্ব বা স্বাস্থ্য বিধির কোনো তোয়াক্কা নেই বললেই চলে। এমন খবর বিভিন্ন পত্র-পত্রিকা, ফেসবুক ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশিত হওয়ার পর ও বাজারে সাধারণ মানুষ প্রয়োজনে-অপ্রয়োজনে ভিড় করছে জানতে পেরে গতকাল সোমবার সকালে ও দুপুরে ঝিনাইদহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার বদরুদ্দোজা শুভ, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খান মোঃ আব্দুল আল-মামুন ও খায়রুল ইসলাম ছুটে আসেন ডাকবাংলা বাজারে। সকালে-দুপুরে মুদি, গার্মেন্টসসহ অন্যন্য মোট ৮ ব্যবসায়ীকে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে জরিমানা আদায় করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, ডাকবাংলা বাজার দোকান মালিক সমিতির সভাপতি আঃ রহমান কামাল, সাধারণ সম্পাদক রাজিব শেখ, ডাকবাংলা পুলিশ ক্যাম্পের এ এস আই রামপ্রসাদ প্রমূখ।
এবিষয়ে ঝিনাইদহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার বদরুদ্দোজা শুভ বলেন, সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে ব্যবসায়ীরা ব্যবসা করবে এবং অযথা বাজারে ভিড় জমালে তাদের বিরুদ্ধে আইনগতভাবে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
ডাকবাংলা বাজার দোকান মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক রাজিব শেখ জানান, আমরা স্বাস্থ্যবিধি মেনে ক্রেতাদের দাঁড়াতে বা বসতে বললেও তারা সেদিকে কোনো খেয়ালই করছেন না। সামনে ঈদ যার কারণে এখন একটু ভিড় বেশি। কিন্তু প্রশাসনের এই মহতী উদ্যোগেকে আমি ব্যক্তিগত ভাবে সাধুবাদ জানায়।