জেলায় করোনার সংক্রমণ রোধে দিন-রাত কাজ করছি

10

আলমডাঙ্গায় শ্রমিকদের মধ্যে ত্রাণ বিতরনকালে ডিসি নজরুল ইসলাম সরকার
আলমডাঙ্গা অফিস:
আলমডাঙ্গায় বাস, ট্রাক ও শ্রমিক ইউনিয়নের ৪ শ শ্রমিকের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার উপজেলা ত্রাণ শাখা থেকে এ ত্রাণ বিতরণ করা হয়। চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ ত্রাণ বিতরণ করেন।
এ সময় জেলা প্রশাসক বলেন, ‘আপনারা শ্রমিকেরা একটা সুশৃঙ্খল সংগঠন। কিন্ত আজ ত্রাণ দিতে এসে আমি হতাশ হলাম। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কথা, কিন্ত আপনারা তা মানছেন না। আপনাদের ধারনা নেই যারা লাইনে দাঁড়িয়ে আছেন, এদের মধ্যে যদি কেউ করোনায় আক্রান্ত হয়ে থাকেন, তাহলে কতজন আক্রান্ত হবেন। মনে রাখবেন, দেশই শুধু নয়, সারা পৃথিবি আজ করোনায় টালমাটাল অবস্থা, সবকিছু স্থবির হয়ে পড়েছে। চুয়াডাঙ্গা জেলায় করোনা আক্রান্তে দ্বিতীয় অবস্থানে আলমডাঙ্গা। আমরা দিন-রাত পরিশ্রম করছি জেলাকে করোনা ছড়ানো থেকে রক্ষা করব। কিন্ত এই পরিস্থিতি চলতে থাকলে করোনা থামানো তো দূরের কথা ব্যাপকহারে ছড়িয়ে পড়বে। কোডিভ-২৯ এর সংক্রমণ রোধে এবং স্বাস্থবিধি মানাতে জেলাজুড়ে আমরা দিন-রাত কাজ করছি। তাই অনুরোধ আপনারা সচেতন হন, করোনাকে রুখে দিন।’
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. লিটন আলীর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আইয়ুব হোসেন, পৌর মেয়র হাসান কাদীর গনু, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাড. সালমুন আহম্মেদ ডন, প্রকল্প কর্মকর্তা এনামুল হক, প্রেসক্লাবের সভাপতি খন্দকার শাহ আলম মণ্টু, সম্পাদক খন্দকার হামিদুল ইসলাম আজম ও আব্দুল লতিফ।