জীবননগরের সেই আনসার সদস্যকে প্রত্যাহার

37

প্রতিবেদক, আন্দুলবাড়ীয়া:
জীবননগরের শাহাপুর পুলিশ ফাঁড়ির সেই ব্যাটালিয়নের সদস্য ফারুক হোসেনকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। পুলিশ সুপারের নির্দেশে গত মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে এক জরুরি বার্তায় তাঁকে ডিঙ্গেদহ আনসার কোয়ার্টারে প্রত্যহার করা হয়। তাঁর বিরুদ্ধে পুলিশের হাতে আটক এক মাদক ব্যবসায়ীকে নিজের সোর্স দাবি করে ছেড়ে দেওয়ার অনৈতিক দাবির অভিযোগ ওঠে। পুলিশ দাবি না মানায় তিনি ক্ষুদ্ধ হয়ে দুই পুলিশ কর্মকর্তাসহ এক কনস্টেবলের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ীকে অর্থবাণিজ্যের মাধ্যমে ছেড়ে দেওয়ার অভিযোগ তোলেন বলেও অভিযোগ ওঠে। পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম এ অভিযোগ পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. কলিমুল্লাহ ও সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার আবু রাসেলকে তদন্তের নির্দেশ দেন। এ নির্দেশ পেয়ে তদন্তকারী কর্মকর্তারা গত সোমবার সকাল সাড়ে নয়টার দিকে শাহাপুর পুলিশ ফাঁড়িতে সরেজমিনে পরিদর্শন করে তদন্ত শুরু করেন। প্রাথমিক তদন্ত শেষে পুলিশ সুপারের নির্দেশে অর্থবাণিজ্যর মাধ্যমে মাদক ব্যবসায়ীকে ছেড়ে দেওয়ার অভিযোগে গত রোববার রাতে শাহাপুর ক্যাম্প ইনচার্জ এসআই সাহিদুজ্জামান সাঈদ, গত সোমবার বিকেলে কনস্টেবল মেহেদী হাসান ও সোমবার বিকেলে জীবননগর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ গণি মিয়াকে দায়িত্ব, কর্তব্যের অবহেলার অভিযোগে এক বার্তায় প্রত্যাহার করে পুলিশ লাইনসে নেওয়া হয়। এর পরেই গত মঙ্গলবার অভিযোগকারী সেই আনসার সদস্যকেও প্রত্যাহার করা হয়।