চুয়াডাঙ্গায় সড়ক দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল চালক আহত

25

নিজস্ব প্রতিবেদক:
চুয়াডাঙ্গার ভালাইপুরে আলমসাধুর ধাক্কায় আতিয়ার রহমান (৪৪) নামের এক ব্যক্তি গুরুতর জখম হয়েছেন। তাঁকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে রেফার্ড করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। গতকাল বুধবার দুপুরে ভালাইপুর বাজারে এ দুর্ঘটনা ঘটে। আহত আতিয়ার রহমান মেহেরপুর জেলার আমঝুপি গ্রামের মৃত ইয়াদ আলীর ছেলে ও ডা. আফছার উদ্দীন কলেজের লাইব্রেরিয়ান হিসেবে কর্মরত।
আহত আতিয়ার রহমান ও তাঁর সহকর্মীরা বলেন, গতকাল দুপুরে কলেজ থেকে ব্যক্তিগতকাজে মোটরসাইকেলযোগে কয়েকজন শিক্ষক চুয়াডাঙ্গায় আসছিলেন। পথের মধ্য ভালাইপুর বাজারে পৌঁছালে পেছন থেকে আসা একটি আলমসাধু তাঁকে ধাক্কা দেয়। এতে আতিয়ার রহমান ছিটকে রাস্তায় পড়ে গুরুতর জখম হন।
এদিকে, এ আলমসাধুকে থামিয়ে আতিয়ারের সঙ্গে থাকা সহকর্মীরা চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেওয়ার অনুরোধ করলে আলমসাধুচালক তাঁদের সঙ্গে মারমুখী আচরণ করেন। এতে উভয়পক্ষ তর্কবিতর্ক করলে আলমসাধুচালক ফোনে কয়েজকজনকে ডেকে তাঁদের লাঞ্চিত করেন। পরে স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় আতিয়ারকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক বলেন, ‘আতিয়ারের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাঁর একটি পা ভেঙে গুড়িয়ে গেছে। আমরা প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করেছি। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে।’