গৃহকর্তার হামলায় পল্লী বিদ্যুত অফিসের দু’কর্মী আহত

156

জীবননগরের রায়পুরে বিল বকেয়া থাকায় বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন
জীবননগর অফিস: জীবননগরে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করায় পল্লী বিদ্যুতের কর্মিদের উপর হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। গতকাল সোমবার সকালে উপজেলার রায়পুর গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে। এতে গুরুতর আহত হয় বিদ্যুত অফিসের দুই কর্মী। পরে আহতদের জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে তাদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে রেফার্ড করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। আহতরা হলেন- লাইন ক্রু আক্কাছুর রহমান (৪০) ও মিটার রিডার কাম ম্যাসেঞ্জার মো. জাহিদুল ইসলাম (৪২)।
পল্লী বিদ্যুত অফিস সূত্রে জানা গেছে, মেহেরপুর পল্লী বিদ্যুতসমিতির জীবননগর সাব জোনাল অফিসের লাইন ক্রু মো. আক্কাছুর রহমান ও মিটার রিডার কাম ম্যাসেঞ্জার মো. জাহিদুল ইসলাম সোমবার বেলা সাড়ে ১২টার সময় উপজেলার রায়পুর কামারপাড়া গ্রামের মজিবর রহমানের ছেলে সেলিমের বাড়ির বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন। দীর্ঘ তিন মাস বিদ্যুত বিল বাকি থাকায় তার বাড়ির সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়। পরে সেখান থেকে ফেরার পথে রায়পুর হুদাপাড়া নামক স্থানে তাদের পথরোধ করে পুনরায় সংযোগ দেওয়ার জন্য চাপ দেন সেলিম। কিন্তু বিল বাকি থাকায় পুনরায় সংযোগ দিতে রাজি না হওয়ায় সেলিমসহ অজ্ঞাত কয়েকজন যুবক তাদের ওপর হামলা চালায়। এ সময় আক্কাছুর রহমান ও জাহিদুল ইসলামকে বেধড়ক মারধর করে এবং তাদের কাছে থাকা মোটরসাইকেলটি ভাঙচুর করে সেলিম ও তার লোকজন।
পরে আহতদের উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে স্থানীয়রা। তাদের মধ্যে আক্কাছুর রহমানের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের রেফার্ড করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক।