খালেদা জিয়ার মুক্তির আন্দোলনে সবাইকে সোচ্চার হতে হবে

123

চুয়াডাঙ্গা জেলা তাঁতী দলের প্রতিনিধি সভায় কেন্দ্রীয় যুগ্ম আহ্বায়ক ড. কাজী মনির
নিজস্ব প্রতিবেদক:
সরকার বিচার বিভাগকে সম্পূর্ণ দলীয়করণের মধ্য দিয়ে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে অন্যায়ভাবে সাজা দেওয়াার পর এখন আইনের ন্যূনতম যে সুযোগ-সুবিধা ও বিধান আছে, সেগুলোও পালন করছে না।
গতকাল বুধবার দুপুর ১২টায় চুয়াডাঙ্গা বড়বাজার রজব আলী সুপার মার্কেটস্থ জেলা বিএনপির কার্যালয়ে জেলা তাঁতীদলের প্রতিনিধি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী তাঁতী দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও খুলনা বিভাগীয় সাংগঠনিক কমিটির প্রধান ড. কাজী মনিরুজ্জামান মনির এ কথা বলেন।
ড. কাজী মনিরুজ্জামান মনির আরও বলেন, ‘দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া, যাঁর বয়স ৭৪ বছর, যিনি তাঁর সমস্ত রাজনৈতিক জীবনটাই এদেশের জনগণের অধিকারের জন্য, ভোটের অধিকারের জন্য, তাদের বাঁচার অধিকারের জন্য সংগ্রাম করেছেন, লড়াই করেছেন, জীবনের শেষ সায়াহ্নে এসে যিনি কোনো দিন অন্যায়ের সঙ্গে, স্বৈরাচারের সঙ্গে, ফ্যাসিবাদের সঙ্গে আপোষ করেননি, সেই নেত্রীকে আজ আটকে রেখেছে আওয়ামী লীগ সরকার। এদেশের মানুষের কাছে দেশ, গণতন্ত্র ও খালেদা জিয়া এখন সমর্থক শব্দ হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাই দেশনেত্রীকে আমাদের সমস্ত শক্তি দিয়ে, জনগণের শক্তি দিয়ে মুক্ত করে আনতে হবে। আসুন সকলে ঐক্যবদ্ধভাবে দেশনেত্রীর মুক্তির আন্দোলনে সোচ্চার হই। তাঁকে কঠিন আন্দোলনের মধ্য দিয়েই আমরা মুক্ত করে নিয়ে আসব, ইনশা আল্লাহ।’
সভায় চুয়াডাঙ্গা জেলা তাঁতী দলের সাবেক সভাপতি মো. নওশের আলীর সভাপতিত্বে প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য দেন জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির অন্যতম সদস্য ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী শরীফুজ্জামান শরীফ। বিশেষ অতিথি ছিলেন তাঁতী দল কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক মো. মোস্তফা কামাল ও জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির অন্যতম সদস্য কাউন্সিলর সিরাজুল ইসলাম মনি।
এ ছাড়া সভায় চুয়াডাঙ্গা সদর থানা বিএনপির সাবেক সিনিয়র সহসভাপতি নজরুল ইসলাম, সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক আবুল কালাম আজাদ, সাবেক প্রচার সম্পাদক মুন্সী আলাউদ্দীন, বিএনপির নেতা শাহাবুল হক, জেলা জাসাসের সাধারণ সম্পাদক সেলিমুল হাবীব সেলিম, জেলা যুবদল নেতা মনিরুজ্জামান লিপটন, খাদিমপুর ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সভাপতি শেরেগুল ইসলাম বিশ্বাস, জেহালা ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সভাপতি শহীদুজ্জামান মিল্টন, জেলা মৎস্যজীবী দলের যুগ্ম আহ্বায়ক কামরুজ্জামান বাবলু, আলুকদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মিজান, জেলা ছাত্রদলের সাবেক আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান সাদিদ, যুগ্ম আহ্বায়ক আশাদুল হক বটুল, রাশেদুল ইসলাম রাশেদ, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আমানউল্লাহ আমান, আরিফ আহমেদ শিপলব ও ছাত্রদল নেতা সোহেল সিদ্দিকী সোহেল উপস্থিত ছিলেন। সভার শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তিলাওয়াত করেন মহাসিন মেম্বার। সভা সঞ্চালনায় ছিলেন জেলা সেচ্ছাসেবকদলের সভাপতি শফিকুল ইসলাম পিটু।