কলেজ বন্ধ, ফেসবুক লাইভে চলছে ক্লাস

503

করোনা কারণে নিজ উদ্যোগে শিক্ষার্থীদের জন্য ক্লাস নিচ্ছেন প্রভাষক সুমন
মেহেররাব্বিন সানভী:
ইংরেজির শিক্ষক বলে কথা। ক্লাস না নিলে ভালো ফলাফল করবে না শিক্ষার্থীরা। সে কথা ভেবেছেন তিনি। তাই করোনাভাইরাসের কারণে সরকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করলেও বসে থাকেননি তিনি। শিক্ষার্থীদের ক্লাস নেওয়া যে তাঁর দায়িত্ব, সেটা তিনি ভুলে না যেয়ে ক্লাস নিচ্ছেন শুধুমাত্র শিক্ষার্থীদের জন্য বিশেষভাবে খোলা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক অ্যাকাউন্টে। নিয়মিত লাইভে এসে শিক্ষার্থীদের চাহিদা মোতাবেক টপিকের ওপর ক্লাস নিচ্ছেন তিনি। বলছিলাম চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের ইংরেজি বিভাগের শিক্ষক মাহমুদুল হাসান সুমনের কথা। ৩৬তম বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস (বিসিএস) পরীক্ষায় শিক্ষা ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হয়ে ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে প্রভাষক পদে যোগদান করেন চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের ইংরেজি বিভাগে। ইংরেজি সাহিত্যে পড়াশোনা করেছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে। চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজে যোগদান করে তিনি শিক্ষার্থীদের নেন অভিনব কৌশলে ক্লাস। তাঁর প্রত্যেকটি ক্লাসে উপস্থিত থাকেন শিক্ষার্থীরা।
চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের ইংরেজি বিভাগের প্রথমবর্ষের ছাত্রী আভা খাতুন জানান, ‘সুমন স্যারের প্রত্যেকটা ক্লাসে উপস্থিত থাকি। অসাধারণ আঙ্গিকে অনেকটাই মজায় তিনি ক্লাস নেন। স্যারের ক্লাস করতে আমার বেশ ভালো লাগে।’ ইংরেজি বিভাগের ছাত্র তোফায়েত আহমেদ ফাহিম বলেন, ‘করোনাভাইরাসের প্রতিরোধে সরকারিভাবে ছুটি দেওয়া হয়েছে আমাদের কলেজ। ইংরেজি সাহিত্যের বিষয়টি আমাদের কাছে বেশ কঠিন। নিয়মিত ক্লাস না করলে সমস্যা। পড়ের ক্লাসটি আর বুঝতে পারি না। চেষ্টা করি নিয়মিত ক্লাস করার। সুমন স্যার নিয়মিত ক্লাস নেন। কলেজ বন্ধ থাকায় তাঁর ব্যক্তিগত ফেসবুক অ্যাকাউন্টে তিনি লাইভে এসে আমাদের চাহিদা মোতাবেক টপিকের ওপরে ক্লাস নিচ্ছেন। এতে কলেজ বন্ধ থাকলেও আমরা কয়েকটি ক্লাস অন্ততপক্ষে করতে পারছি।’ আরেক ছাত্র উৎস বিশ্বাস বলেন, ‘করোনা নিয়ে আমরা বেশ সতর্ক। করোনার কারণে আমাদের ক্লাস বন্ধ হয়ে গেছে। তবে এই মুহূর্তে সুমন স্যারের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে নেওয়া ক্লাস আমাদের বেশ কাজে লাগছে। কলেজ বন্ধ থাকলেও তিনি অনলাইনে যে ক্লাস নিচ্ছেন, এটির কারণে আমাদের ক্লাসের মতোই অনেক সমস্যায় সমাধান হচ্ছে।’