আলমডাঙ্গায় পুলিশ পরিচয়ে রাতের আঁধারে মারধর, থানায় মামলা

99

ভ্রাম্যমাণ প্রতিবেদক, আলমডাঙ্গা:
আলমডাঙ্গার ঘোলদাড়ী কুটিপাইকপাড়ায় রাতের আঁধারে পুলিশ পরিচয়ে মারধরের ঘটনা ঘটেছে। গত সোমবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। মারধরের ঘটনায় আহত লিটন আলী নামের এক ব্যক্তি বাদী হয়ে গতকাল শুক্রবার বেলা ১টার দিকে আলমডাঙ্গা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন।
জানা গেছে, আলমডাঙ্গা উপজেলার আইলহাঁস ইউনিয়নের কুটিপাইকপাড়া গ্রামের ওহিদুলের ছেলে লিটনের সঙ্গে ঘোলদাড়ী গ্রামের মৃত মুনছুর আলীর ছেলে এনামুল দীর্ঘদিন যাবৎ টাইলস মিস্ত্রি হিসেবে কাজ করতেন। ১৫ দিন আগে হঠাৎ লিটন ও এনামুলের মধ্যে তর্কবিতর্ক সৃষ্টি হয়। এরই জের ধরে, গত সোমবার রাতে মৃত মুনছুর আলীর ছেলে এনামুল (২৫), মোফাজ্জেল হোসেনের ছেলে আতিয়ার (৪৫), মৃত খলিলের ছেলে খাজা (২৭) ও ওহাব আলীর ছেলে শরিফ (২৫) গভীর রাতে লিটনের বাড়িতে হানা দেন। প্রথমে লিটন রাতে বাড়ির দরজা খুলতে না চাওয়ায় তাঁরা নিজেদের পুলিশ হিসেবে পরিচয় দেন। এরপর লিটন বাড়ির দরজা খুলে দিলে লিটনের ঘরে এনামুল ও তাঁর সঙ্গীরা প্রবেশ করে মারধর করতে থাকেন। তাঁরা লিটনকে টানতে টানতে বাড়ির পাশের মাঠে নিয়ে বেধরক মারধর করে গুরুতর জখম করেন। এ সময় লিটনের স্ত্রী ঠেকাতে গেলে তাঁকেও শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করা হয়। এরপর এলাকাবাসী লিটন ও তাঁর স্ত্রীর চিৎকারে ছুটে আসেন এবং লিটনকে উদ্ধার করে রাতেই চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। এ ঘটনায় গতকাল বেলা ১টার দিকে লিটন বাদী হয়ে ৪ জনের নাম উল্লেখ করে আলমডাঙ্গা থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন।