আরজু বানুর পাশে দাড়ালেন ডা. তন্ময়

211

চুয়াডাঙ্গায় পৃথকস্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় বৃদ্ধাসহ আহত ৩
নিজস্ব প্রতিবেদক:
দামুড়হুদার উজিরপুরে রাস্তা পার হওয়ার সময় মোটরসাইকেলের ধাক্কায় গুরুতর জখম হয়েছেন আরজু বানু (৯০) নামের এক বৃদ্ধা। গতকাল শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে দামুড়হুদার উজিরপুর মোল্লাপাড়া ঈদগাহর নিকট এ ঘটনা ঘটে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় পরিবারের সদস্যরা তাঁকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন। খবর পেয়ে হাসপাতালের জুনিয়র সার্জারি কনসালটেন্ট ডা. এহসানুল হক তন্ময় তাঁকে তাৎক্ষণিক চিকিৎসা দিয়ে ভর্তি রাখেন। গুরুতর জখম আরজু বানু দামুড়হুদার উজিরপুর মোল্লাপাড়ার মৃত আজাদ আলী মোল্লার স্ত্রী।
পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, গতকাল দুপুরে পুকুরে গোসল করার উদ্দেশ্যে প্রতিদিনের ন্যায় রাস্তার বিপরীত পাশের পুকুরে যাচ্ছিলেন আরজু বানু। রাস্তা পার হওয়ার সময় একটি দ্রুতগতি সম্পন্ন মোটরসাইকেল তাঁকে ধাক্কা দিয়ে বুকের ওপর দিয়ে চলে যায়। এ সময় আরজু বানুর গলার নিচ দিয়ে বুকের চামড়া ছিড়ে যায় এবং হাত, মাথা ও কোমড়ে গুরুতর জখম হয়। আশঙ্কাজনক অবস্থায় স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় পরিাবরের সদস্যরা তাঁকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে এলে জুনিয়র সার্জারি কনসালটেন্ট ডা. এহসানুল হক তন্ময় তাঁকে চিকিৎসা প্রদান করেন।
এ বিষয়ে ডা. এহসানুল হক তন্ময় জানান, ‘মোটরসাইকেলটি সম্ভবত তাঁর বুকের ওপর দিয়ে চলে গেছে। তাঁর বুকের চামড়া অনেকটা ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। মাথা, হাতসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে গুরুতর জখম হয়েছে। তাঁকে চিকিৎসা দিয়ে অবজারভেশনে রাখা হয়েছে এবং আহত ব্যক্তির পরিবারের সদস্যদের প্রস্তুত থাকতে বলেছি, তাঁর অবস্থার উন্নতি না হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য। তবে আশা রাখি, একটু সময় লাগলেও এখানেই তিনি সুস্থ হয়ে উঠবেন।’
এদিকে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত আহত বৃদ্ধার পরিবারের সদস্যরা ডাক্তারের পূর্বের পরামর্শ ও পারিবারিক সিন্ধান্তে সন্ধ্যার পর আরজু বানুর উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে নিয়ে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উদ্দেশে রওনা হন।
অপরদিকে চুয়াডাঙ্গার সাধুহাটি মোড়ে গরুবোঝাই লাটাহাম্বার ও আলমসাধুর সংঘর্ষে মুক্তার আলী নামের আরেক এক বৃদ্ধ গুরুত্বর জখম হয়েছেন। স্থানীয় লোকজন তাঁকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন। পরে তাঁকে তাৎক্ষনিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফর্ড করা হয়।
অন্যদিকে চুয়াডাঙ্গার মোমিনপুর বোয়ালমারি গ্রামের প্রথমপাড়ায় নিজ বাড়ির সামনের রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাওয়ার সময় একটি ইজিবাইকের ধাক্কায় গুরুতর আহত হয়েছেন বোয়ালমারি প্রথমপাড়ার আবসের আলীর ছেলে মজ্জেম আলী। এ সময় পরিবারের সদস্যরা তাঁকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে এলে কতর্ব্যরত চিকিৎসক তাঁকে তাৎক্ষণিক চিকিৎসা দিয়ে ভর্তি রাখেন।