আজ সারা দেশে বই উৎসব

183

সমীকরণ ডেস্ক: বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বছরের প্রথম দিন ২০১৯ সালের ১ জানুয়ারি সারাদেশে একযোগে ‘পাঠ্যপুস্তক উৎসব দিবস’ পালন করবে সরকার। আজ প্রথম থেকে নবম শ্রেণির সব শিক্ষার্থীর হাতে বিনামূল্যের নতুন পাঠ্যবই তুলে দেওয়া হবে। এ বছর বিতরণ করা হবে ৩৫ কোটি ২১ লাখ ৯৭ হাজার ৮৮২টি নতুন পাঠ্যবই। এর আগে গত ২৪ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বই বিতরণ উদ্বোধন করেন। শিক্ষা মন্ত্রণালয় আয়োজিত জাতীয় পর্যায়ের অনুষ্ঠান রাজধানীর আজিমপুর গভর্নমেন্ট গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজে সকাল সাড়ে ৯টায় অনুষ্ঠিত হবে। শিক্ষামন্ত্রী অনুষ্ঠান পরিচালনা এবং শিক্ষার্থীদের হাতে নতুন বই তুলে দেবেন। এ সময় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসাইন, কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আলমগীর, এনসিটিবির চেয়ারম্যান প্রফেসর নারায়ণ চন্দ্র সাহা এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত থাকবেন।
অন্যদিকে, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় আলাদাভাবে ‘বই উৎসব দিবস’ পালন করবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে। বছরের প্রথম দিন সকাল ৯টায় এই অনুষ্ঠানে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের সংশ্লিষ্ট সব কর্মকর্তা-কর্মচারীকে উপস্থিত থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আকরাম-আল হোসেন। দেশব্যাপী প্রাক-প্রাথমিক, প্রাথমিক, মাধ্যমিক, এবতেদায়ি, দাখিল, দাখিল ভোকেশনাল, এসএসসি ভোকেশনাল, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী এবং দৃষ্টি প্রতিবন্ধীসহ চার কোটি ২৬ লাখ ১৯ হাজার শিক্ষার্থীর জন্য বিতরণ করা হবে ৩৫ কোটি ২১ লাখ ৯৭ হাজার ৮৮২ পাঠ্যবই। পাঠ্যবই সরবরাহ ও উৎসব পালন সম্পর্কে জানতে চাইলে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের (এনসিটিবি) চেয়ারম্যান প্রফেসর নারায়ণ চন্দ্র সাহা বলেন, দেশে পাঠ্যবই উৎসব পালনে কোনো ধরনের সমস্যা না হয়, সে জন্য আমরা প্রয়োজনীয় সব বই মুদ্রণ শেষে প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পৌঁছে দিয়েছি। আশা করছি, বিনামূল্যের এই বই পেতে শিক্ষার্থীদের কোনো সমস্যা হবে না।